অশনি সংকেত! চারদিনে রাজ্যে দৈনিক আক্রান্ত ছাড়াল তিনহাজার, হাসপাতালে কোভিড বেড বাড়ানোর নির্দেশ

Home রাজ্য অশনি সংকেত! চারদিনে রাজ্যে দৈনিক আক্রান্ত ছাড়াল তিনহাজার, হাসপাতালে কোভিড বেড বাড়ানোর নির্দেশ
অশনি সংকেত! চারদিনে রাজ্যে দৈনিক আক্রান্ত ছাড়াল তিনহাজার, হাসপাতালে কোভিড বেড বাড়ানোর নির্দেশ

বঙ্গভূমি লাইভ ডেস্ক: চলতি সপ্তাহে সোমবার রাজ্যে দৈনিক কোভিড আক্রান্তের সংখ্যা ছিল ৪৩৯। বাড়তে বাড়তে শুক্রবার সেই সংখ্যা দাঁড়াল সাড়ে তিন হাজারের কাছাকাছি। দেশ জুড়ে ওমিক্রন-সংক্রমণের মুখে, গত চার দিনে দৈনিক আক্রান্তের সংখ্যায় এই অস্বাভাবিক বৃদ্ধি আশঙ্কা বাড়িয়েছে। কলকাতায় নতুন আক্রান্ত প্রায় দু’হাজার। মহানগরী সংলগ্ন উত্তর ২৪ পরগনা, হাওড়া, হুগলি ও দক্ষিণ ২৪ পরগনাতেও লাফিয়ে বাড়ছে দৈনিক আক্রান্তের সংখ্যা।

বুধবার রাজ্যে দৈনিক আক্রান্তের সংখ্যা হাজারের গণ্ডি পার করেছিল। বৃহস্পতিবার তা ছাড়াল দু’হাজার। শুক্রবার রাজ্য স্বাস্থ্য দফতর প্রকাশিত বুলেটিন অনুযায়ী, গত ২৪ ঘণ্টায় রাজ্যে নতুন করে সংক্রমিত হয়েছেন ৩ হাজার ৪৫১ জন। মহানগরীতেও প্রায় একই হারে লাফিয়ে বাড়ছে আক্রান্তের সংখ্যা। গত সোমবার কলকাতায় দৈনিক আক্রান্তের সংখ্যা ছিল ২০৪। বৃহস্পতিবার তা বেড়ে হয়েছিল ১ হাজার ৯০। শুক্রবার কলকাতাতেই আক্রান্ত হয়েছেন ১ হাজার ৯৫৪ জন।

বুলেটিনে ওমিক্রনের আক্রান্তের উল্লেখ করা না-থাকলেও স্বাস্থ্য দফতর সূত্রে জানা গিয়েছে, রাজ্যে এখনও পর্যন্ত ১৬ জন কোভিডের নয়া রূপে আক্রান্ত। বুধবার পর্যন্ত সংখ্যাটা ছিল ১১। বৃহস্পতিবার আরও পাঁচ জনের শরীরে মিলেছে ওমিক্রন। শুক্রবারের রিপোর্ট এখনও সামনে আসেনি।রাজ্যে দৈনিক আক্রান্তের সংখ্যা বাড়লেও শেষ ২৪ ঘণ্টায় কমল মৃত্যু। শুক্রবার রাজ্যে কোভিডে মারা গিয়েছেন সাত জন। এর মধ্যে কলকাতায় মৃত্যু হয়েছে চার জনের। আর উত্তর ২৪ পরগনায় দু’জনের।

পরিস্থিতি হাতের বাইরে চলে যাওয়ার আগেই, বেসরকারি হাসপাতালগুলির সঙ্গে তড়িঘড়ি বৈঠক করল রাজ্যের স্বাস্থ্য দফতর। শুক্রবার ভিডিও কনফারেন্সের মাধ্যমে বেসরকারি হাসপাতালগুলির সঙ্গে বৈঠকে স্বাস্থ্য সচিব ছাড়াও স্বাস্থ্য দফতরের অন্য কর্তারা উপস্থিত ছিলেন। সেখানে হাসপাতালগুলিকে একাধিক সতর্কতামূলক পদক্ষেপ নিয়ে বলেছে স্বাস্থ্য দপ্তর।

জানা গিয়েছে, ওই বৈঠকে থেকেই বেসরকারি হাসপাতালগুলিকে ১ সপ্তাহের মধ্যে কোভিড বেড বাড়ানোর নির্দেশ দেওয়া হয়েছে।হাসপাতালের মোট শয্যা সংখ্যার ৩০ শতাংশ কোভিড রোগীদের জন্য বরাদ্দ করতে বলা হয়েছে। প্রয়োজনে ৬০ শতাংশ বেড প্রস্তুত রাখার নির্দেশ। করোনা রোগীর পরিষেবায় স্বাস্থ্যকর্মীদের নতুন করে প্রশিক্ষণ দেওয়ার পরামর্শ দিয়েছেন রাজ্যের স্বাস্থ্যকর্তারা।বলা হয়েছে রোগীদের অক্সিজেন দেওয়ার পদ্ধতিও যেন তাঁদের জানা থাকে।পাশাপাশি করোনা চিকিৎসার সরঞ্জাম, ওষুধ এক সপ্তাহের মধ্যে মজুত করতে নির্দেশ। এ ছাড়া স্বাস্থ্য দপ্তরের নির্দেশ, কোভিড সংক্রমণের সংখ্যা এবং রিপোর্ট সম্পর্কে প্রতি দিন ওয়াকিবহাল করতে হবে। ওমিক্রন আক্রান্তের খোঁজ পাওয়া গেলেই সঙ্গে সঙ্গে জানাতে হবে। কম বয়সীদের টিকাকরণে যাতে কোনও ঘাটতি না হয় সে দিকেও নজর দিতে বলা হয়েছে। প্রতিটি হাসপাতালে ১৫ থেকে ১৮ বছর বয়সীদের জন্য যথেষ্ট পরিমাণে কোভ্যাক্সিন মজুত করতে হবে।

Leave a Reply

Your email address will not be published.